১২টা ৫ মিনিটে আমরা বিয়ে করেছি: মাহি

বিয়ে নিয়ে গেল ক’মাস ভালোই গুঞ্জন পোহালেন নায়িকা মাহিয়া মাহি। অবশেষে সত্যিটা প্রকাশ করলেন। জানালেন বিয়েটা তিনি সত্যিই করেছেন। তবে আগে নয়, এই রাতের প্রথম প্রহরেই সেরেছেন আকদ।

মাহি বলেন, ‘এর আগের সব কথা আসলেই গুজব ছিলো। আমরা আজ ১৩/০৯/২১ ইং রাত ১২টা ০৫ মিনিটে বিয়ে করেছি। সবাই আমাদের জন্য দোয়া করবেন এটাই একমাত্র চাওয়া।’ পাত্র ব্যবসায়ী-রাজনীতিক কামরুজ্জামান সরকার রাকিব।

গত মে মাসে সিলেটের পারভেজ মাহমুদ অপুর সঙ্গে নিজের বিচ্ছেদের কথা জানিয়েছিলেন মাহি। জুন মাসের এক রাতে হঠাৎ করেই মাহি ফেসবুকে লেখেন, ‘ওয়েল, আই ক্যান ফিল ইউ ইন সংস, মুভিজ অ্যান্ড এভরিহয়ার, আলহামদুলিল্লাহ!’ (ভালো! গান, সিনেমা, সর্বত্রই আমি তোমাকে অনুভব করতে পারি, আলহামদুলিল্লাহ)।’

তখনই নতুন প্রেমের গুঞ্জন চারদিকে চাউর হয়। সেদিন মেহেদিতে রাঙানো ছিল মাহির হাত। আর পরনে ছিল গোলাপি রঙের একটি শাড়ি। তার পাশেই পাঞ্জাবি পরে ছিলেন গাজীপুরের রাকিব।

এরপরই মাহির ফেসবুক স্ট্যাটাসগুলো আরও রোমান্টিক হয়ে ওঠে। ১৪ জুন লেখেন, ‘মিসিং ইউ।’ ১৮ জুন, ‘আমি সারা দুনিয়া ঘুরিয়া দেখি, সুখ তো আমার ব্যালকনিতেই ছিল।’ এরপরই লেখেন, ‘একজন কেউ থাকুক যে তোমাকে ছাড়বে না।’

পরের মাসে ফেসবুকে লেখেন, ‘আমি ১২ বছরের সম্পর্ক ভেঙে যেতে দেখেছি, আবার ১২ দিনের সম্পর্ক আজীবন টিকে যেতেও দেখেছি।’

এখানেই শেষ নয়। জুন মাসের শেষ সপ্তাহে মাহি ফেসবুকে তিনবার লেখেন, ‌‘আলহামদুল্লিলাহ’। আগস্ট মাসের ৬ তারিখে আবারও একইভাবে লেখেন, ‘আলহামদুল্লিলাহ’। এরপর গত ১৯ আগস্ট তিনি যান ঢাকার বাইরে কোনও এক সৈকতে। ধারণা করা হয়েছে সেটা হানিমুন ছিলো। পরের চার-পাঁচ দিন শুধু নিজের একার ছবি পোস্ট করেন মাহি। তবে শেষের দিকে ২৫ আগস্ট দুই পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে তার ছবি পাওয়া যায়।

তবে এসব গুঞ্জন ছাপিয়ে সোমবার মধ্যরাতে বিয়ের বিষয়ে স্পষ্ট তথ্য প্রকাশ করেন মাহি।

আরো