মাত্র শুরু করলাম: কেয়া পায়েল

এই সময়ের টিভি পর্দার অভিনেত্রী কেয়া পায়েল। দিন দিন তার ব্যস্ততা বাড়ছে। এমন পরিস্থিতি দাঁড়িয়েছে যে মাসের প্রায় ২০ দিনই শুটিং করতে হয় তাকে। একটা সময় হাতে অফুরন্ত সময় ছিল। এখন এতো ব্যস্ততা। ক্লান্তি কাজ করে না?

কেয়া পায়েল বলেন, ক্লান্তি তো কাজ করেই। কিন্তু কিছু করার নেই, এখন চাইলেও বিরতি নিতে পারছি না। উৎসব চলে আসছে আবার।

তবে কাজটা উপভোগ করি খুব। ক্লান্তি ভুলে যাই। উৎসব বলতে ভালোবাসার দিবসের নাটক শুরু করেছেন? এ অভিনেত্রী বলেন, হ্যাঁ। ভালোবাসা দিবসের নাটক নিয়েই ব্যস্ত আছি। তবে এখন খুব বেছে কাজ করছি। ভালো নির্মাতা, সঙ্গে চরিত্রে ভিন্নতা আনা ও নিজেকে ভাঙার চেষ্টা করছি।

এতোদিন শুধু একক নাটককে ঘিরেই সকল ব্যস্ততা ছিল আপনার। এবার সেই গণ্ডি থেকে বের হয়েছেন। প্রথমবারের মতো রাফাত মজুমদারের পরিচালনায় ‘জয়েন্ট ফ্যামিলি’ নামের ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করছেন।

হঠাৎ ধারাবাহিক নাটকে যুক্ত হওয়ার পেছনের কারণ কী? কেয়া পায়েল বলেন, আসলে আগে ব্যাটে বলে মিলেনি। ওরকম গল্প পাইনি। সময়ও একটা ব্যাপার ছিল। এবার সবকিছু মন মতো হওয়াই কাজ করা। অভিজ্ঞতা কেমন?

কেয়া পায়েল বলেন, মাত্র শুরু করলাম। দুইটা লটের কাজ শেষ করেছি। সামনে আরও দুইটা লট আছে। ধারাবাহিক নাটক যেহেতু, অনেক বড় জার্নি। দেখা যাক কী আছে কপালে! যতদূর কাজ করলাম অভিজ্ঞতা বেশ ভালো। ধারাবাহিকটিতে আপনার নায়ক তৌসিফ মাহবুব। তার বিপরীতে বেশি দেখা যাচ্ছে আপনাকে। তার সঙ্গে বেশি কাজের কারণ কী?

কেয়া পায়েলের উত্তর- তৌসিফ মাহবুবের সঙ্গে কাজে কমফোরট জোনটা আছে। আর দর্শকরাও চাইছেন আমাদের একসঙ্গে দেখতে। আপনার সহকর্মীদের অনেকেই ওটিটিতে কাজ করছেন। আপনার এ মাধ্যমে কাজের কোনো সম্ভাবনা আছে?

পায়েল বলেন, আপাতত ওটিটির কাজ করার সম্ভাবনা নেই। তবে সব মিলে গেলে ওটিটির কাজ হাতে নিয়ে নিব।