যুক্তরাষ্ট্রের কাছ থেকে বহুমুখী বিনিয়োগ চায় বাংলাদেশ

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আবদুল মোমেন সোমবার যুক্তরাষ্ট্রের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলোকে জ্বালানি খাতের বাইরে গিয়ে বাংলাদেশে তাদের বিনিয়োগ বহুমুখী করতে উৎসাহিত করেছেন।

ফরেন সার্ভিস একাডেমিতে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে মোমেন বলেন, বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্রের বর্তমান বিনিয়োগ জ্বালানি খাতে কেন্দ্রীভূত।

তিনি বলেন, অনেক সম্ভাবনাময় ক্ষেত্র রয়েছে যেখানে বাংলাদেশ বিদেশি বিনিয়োগ চায়।

যুক্তরাষ্ট্রের একটি প্রতিনিধি দল দুই দেশের মধ্যে অর্থনৈতিক সুযোগ খুঁজতে ১১ মে পর্যন্ত বাংলাদেশ সফর করছে। তারা ইউএস-বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিলের সদস্য।

ডিজিটাল, জ্বালানি, আর্থিক পরিষেবা, বীমা ও কৃষির মতো খাতের ২৫ জনের বেশি নির্বাহী ব্যবসায়িক প্রতিনিধি দলে রয়েছেন।

সোমবার বিকালে ফরেন সার্ভিস একাডেমিতে প্রতিনিধি দলটি মোমেনের সঙ্গে দেখা করে।

এর আগে রোববার বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত পিটার হাস প্রতিনিধি দলের সঙ্গে সংক্ষিপ্ত মতবিনিময় করেন।

শেভরনের ভাইস-প্রেসিডেন্ট (ব্যবসা উন্নয়ন) জে আর প্রাইর বলেন, বাংলাদেশে কাউন্সিলের প্রথম বাণিজ্য মিশনের উদ্দেশ্য হলো পুরনো বন্ধুত্বের নবায়ন করা এবং নতুন অংশীদারিত্বের সুযোগ অন্বেষণ করা।

ইউএস-বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিলের উদ্বোধনী বোর্ড চেয়ার প্রাইর বলেছেন, মার্কিন কোম্পানিগুলো বাংলাদেশের চমৎকার অর্থনৈতিক উন্নয়নে অবদান রাখতে চায়।